সর্বশেষ

বৃষ্টি ছিলো, তুমি ছিলেনা।

kiron

 

 

 

 

 

বৃষ্টি ছিলো, তুমি ছিলেনা।

সেই দিনওতো বৃষ্টি ছিলো কালো মেঘে গোমড়া ছিল আকাশ,
হিম হাওয়া বয়েছিলো তোমাদের পৃথিবীতে।
লোকশূণ্য রাস্তার নিস্তব্ধতা, দূর দূরান্তে একটু নিয়ন আলো,
একটি পাখি, একটি আকাশ আর আমি একা,
কই সেদিন ওতো আমার কেউ ছিলনা!!
যখন আকাশের সব মেঘ ঝরে পড়েছে তোমাদের পৃথিবীর অভ্যন্তরে,
আর হাওয়ারা স্তব্ধ হয়ে পালন করছে নিরবতা,
পাখিটি ফিরে গেছে নিজ গৃহে,
আমারতো কোন গৃহ নেই!!
তবে কি আমি গৃহ শূণ্য সন্নাসীর মত হাজার মাইল পথ পেরিয়ে দুচোখ চুপসে নুয়ে পড়ব কোন বটবৃক্ষে!!

একটা জোনাকি একা -আলোর ভূবন ছড়াতে ছড়াতে হারিয়েছে নিজের আলো,
কই তাকে তো কেউ পথ দেখায়নি!!
আজ মহাশূণ্যতায় অতিষ্ঠ অন্ধকারে ডুবে যাওয়া তরীর নাবিক খুজেছে আপন ঠিকানা,
শুধুই পেয়েছে হাজার হ্রদের দেখা।
কই আজও তো কেউ নেই,
শুধুই শূন্যতা, মহাশূন্যতা!!

লেখকঃ নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক।

One comment

  1. মাইন্ডব্লোয়িং

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*